[english_date], [bangla_day]

বরিশাল আইএইচটি কলেজের উপাধ্যক্ষকে বহনকারী মোটরসাইকেলে ইয়াবা, আটক ৩

আপডেট: August 17, 2019

নিজস্ব প্রতিবেদক :: বরিশাল ইনস্টিটিউট অব হেলথ টেকনোজির (আইএইচটি) উপাধ্যক্ষ শুভাঙ্কর বাড়ৈকে বহনকারী একটি মোটরসাইকেল থেকে ইয়াবা উদ্ধার করেছে মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ। এই ঘটনায় উপাধ্যক্ষ এবং মোটরসাইকেল মালিক ওই কলেজের হেড ক্লার্ক মাইনুদ্দিনসহ ৩ জনকে আটক করেছে ডিবি।

শনিবার দুপুরে তাদেরকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের অদূর ব্যাপ্টিস্ট মিশন রোডের মুখ থেকে আটক করে নিয়ে যাওয়া হলেও সন্ধ্যা পর্যন্ত ডিবি পুলিশ এই বিষয়ে কোন কিছু মিডিয়াকর্মীদের অবহিত করেনি।

তবে ডিবি পুলিশ দাবি করেছে- পুরো বিষয়টি রহস্যজনক হওয়ায় তাদের হেফাজতে রেখে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। কিন্তু এর বাইরে বিস্তারিত তথ্য প্রকাশে অনাগ্রাহ প্রকাশ করেছে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়- বরিশাল ইনস্টিটিউট অব হেলথ টেকনোজির (আইএইচটি) উপাধ্যক্ষ শুভাঙ্কর বাড়ৈকে দুপুরে মোটরসাইকেলযোগে বাসায় এগিয়ে দিতে যাচ্ছিলেন প্রধান ক্লার্ক মাইনুদ্দিন। পথিমধ্যে ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিনের নেতৃত্বে টিম শহরের ব্যাপ্টিস্ট মিশন রোডে মুখে তাদের মোটরসাইকেলের গতিরোধ করেন। একপর্যায়ে সেখানে উপস্থিত জনতার সামনে মোটরসাইকেলটির সিটির ভেতর থেকে ৪০ পিস ইয়াবা উদ্ধার করে ডিবি পুলিশ। এই ঘটনায় তাদের দুজনকে আটক করে তাৎক্ষণিক ডিবি পুলিশের অফিসে নিয়ে যাওয়া হয়।

ডিবি পুলিশের একটি সূত্র জানায়- উপাধ্যক্ষ ও হেড ক্লার্ক ইয়াবা উদ্ধারের ঘটনাটিকে ডিবি পুলিশের উচ্চপদস্থ কর্মকর্তাদের কাছে পরিকল্পিত বলে দাবি করে তথ্যদাতার সম্পৃক্ততার অভিযোগ করেন। পরে ডিবি পুলিশ এই ঘটনায় তথ্যদাতাকেও ডেকে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করে। কিন্তু সন্ধ্যা পর্যন্ত এই ঘটনায় কোন সিদ্ধান্ত দেননি ডিবি পুলিশের শীর্ষ কর্মকর্তারা।

ডিবি পুলিশের অপর একটি সূত্র জানায়- শেষ পর্যন্ত এই ঘটনায় উপাধ্যক্ষ ও ডিবির সোর্সকে মুক্তি দিয়ে হেড ক্লার্ককে মামলায় আসামি দেখানো হতে পারে।

তবে অভিযান পরিচালনাকারী ডিবি পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) মহিউদ্দিন এই বিষয়ে কোন ধরনের মন্তব্য না করে বলছেন- পরবর্তীতে তাদের শীর্ষ কর্মকতারা সিদ্ধান্ত অবহিত করবেন।’

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন